উত্তর ও দক্ষিণ দিনাজপুর জেলা

চোপড়ায় ভোট ঘিরে উত্তেজনা , পুলিশের ভূমিকায় ক্ষোভ স্থানীয়দের

উত্তর দিনাজপুরঃ  ভোটগ্রহণকে কেন্দ্র করে উত্তপ্ত দার্জিলিং লোকসভা কেন্দ্রের চোপড়ার নৈনিতাল । চোপড়া ব্লকের ১৮০ ও ১২৯ নম্বর বুথে ভোট দিতে গেলে দুষ্কৃতীরা গ্রামবাসীদের ওপর চড়াও হয়ে ভোটদানে বাধা দেয় । দফায় দফায় চলে সংঘর্ষ । ভোট দেওয়া ও কেন্দ্রীয় বাহিনীর দাবীতে জাতীয় সড়ক অবরোধ করে গ্রামবাসীরা । উত্তেজিত জনতাকে ছত্রভঙ্গ করতে চলে গুলি ও টিয়ার গ্যাসের সেল ফাটায় পুলিশ । গোটা ঘটনায় রিপোর্ট তলব করেছে নির্বাচন কমিশন ।

এদিন সকালে এলাকার বেশ কয়েকটি গ্রাম থেকে ভোটারদের বের হতে দেওয়া হচ্ছিল না বলে অভিযোগ ওঠে । বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে গ্রামের মানুষ ঐক্যবদ্ধ হয়ে ৩১ নম্বর জাতীয় সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভে সামিল হন । গণতান্ত্রিক অধিকার প্রয়োগে সঠিক নিরাপত্তার ব্যবস্থার দাবিতে চলে তাদের বিক্ষোভ কর্মসূচী । বিশাল পুলিশ বাহিনী গিয়ে স্থানীয়দের আশ্বাস দিলেও ভোটকেন্দ্রে যেতে নারাজ গ্রামবাসীরা । তাদের অভিযোগ , সকাল থেকে পুলিশ যখন কোনও ব্যবস্থাই নেয় নি তখন তারা কোনো নিরাপত্তাই দিতে পারবে না । এই নিয়ে পুলিশের সঙ্গে ধস্তাধস্তিতে জড়িয়ে পড়ে গ্রামবাসীরা । ঘটনাস্থলে যান মহকুমা প্রশাসনের কর্তারা । পুলিশকে ঘিরে গ্রামবাসীরা বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করে । পরিস্থিতি নাগালের বাইরে যেতে শুরু করলে উত্তেজিত জনতাকে ছত্রভঙ্গ করতে লাঠিচার্জ শুরু করে পুলিশ । ফাটানো হয় টিয়ার গ্যাসের সেল । চলে বেশ কয়েক রাউন্ড গুলিও । থমথমে চেহারা নেয় পুরো এলাকা । পুলিশের ভূমিকায় ক্ষুব্ধ এলাকার মানুষ । স্থানীয়দের অভিযোগ ,যারা ভোটারদের ভোট দিতে দিল না তাদের না ধরে নিরীহ গ্রামবাসীদের উপর অত্যাচার করছে পুলিশ । গোটা ঘটনায় তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে অভিযোগের আঙুল তুলেছে গ্রামবাসীরা । যদিও স্থানীয় তৃণমূল কর্মীদের অভিযোগ, বিজেপিকর্মীরা ইচ্ছাকৃতভাবে এমন পরিস্থিতি তৈরী করেছে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *