জেলা বীরভূম

ঘরের মধ্যে থেকে প্রৌঢ়ের পচাগলা দেহ উদ্ধার, এলাকায় চাঞ্চল্য

বীরভূমঃ  ঘরের মধ্যে থেকে এক ব্যক্তির পচাগলা মৃতদেহ উদ্ধারকে ঘিরে চাঞ্চল্য । ঘটনাটি ঘটেছে বীরভূমের সিউড়ি থানা এলাকার বড় বাগান পাঁচের পল্লী এলাকায় ।  জানা গেছে মৃতের নাম অপূর্ব মন্ডল বয়স আনুমানিক ৬৫ । স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, অপূর্ববাবু্র স্ত্রী মারা গিয়েছে আগেই, ভাই নির্মল মণ্ডল, তার স্ত্রী ও দুই ছেলের সঙ্গে পাঁচের পল্লীর একই বাড়িতে থাকতেন অপূর্ব মণ্ডল । স্থানীয়দের দাবি, কদিন থেকেই বাড়িতে এক ভাইপো প্রীয়কের সঙ্গে একাই ছিলেন অপূর্ববাবু । এরই মাঝে হঠাৎই বুধবার থেকে প্রচণ্ড পরিমানে দুর্গন্ধ ছড়াতে শুরু করে এলাকায় ।

স্থানীয়রা বুঝতে পারছিলেন না কোথা থেকে দুর্গন্ধ আসছে । তারই মধ্যে এদিন সন্ধ্যায় অপূর্ব মণ্ডলের দেহ সৎকারের জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন তার ভাইপো প্রীয়ক মণ্ডল এবং তার মাসি । তা দেখে সন্দেহ জাগলে পাড়া-প্রতিবেশীরা খবর দেয় পুলিশে । পুলিশ এসে মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য নিয়ে যায় । এই নিয়ে অপূর্ব মণ্ডলের ভাইপো প্রীয়ককে জানতে চাওয়া হলে সে বলে বাড়ির লোকদের খবর দেওয়া হয়েছে । তবে পুলিশ বা পাড়া প্রতিবেশীকে কিছুই জানানো হয়নি । তাকে সাধারন প্রশ্ন করা হলেও তার কথায় বিভিন্ন অসঙ্গতি রয়েছে । অন্যদিকে প্রীয়ক মণ্ডলের মাসির দাবি,  তার বোনপো প্রীয়ক মানসিক ভারসাম্যহীন । তাই সে তার পরিবারের সদস্যদের জানিয়েছিল ।

পাড়া-প্রতিবেশী পুলিশকে জানানোর মতো বোধবুদ্ধি তার নেই । স্থানীয়দের অভিযোগ, যদি প্রীয়কের মাসি এ ব্যাপারে জানতেন তবে তিনি কেন জানাননি পুলিশ বা অন্য কাউকে । এই নিয়ে কোনও উত্তর দিতে পারেননি তিনি ।

তবে স্থানীয় বাসিন্দাদের দাবি, অন্ততপক্ষে ৪  থেকে ৫  দিন আগে ওই ব্যক্তি মারা গেছেন । সম্ভবত খুন করে লুকিয়ে দেহ লোপাটের চেষ্টা চালাচ্ছিল মাসি ও বোনপো বলে সন্দেহ করছেন স্থানীয়রা । খুন সন্দেহে মাসি ও বোনপোকে আটক করে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *